• Youtube
  • English Version
  • শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৯:৩২ অপরাহ্ন

করাঙ্গী নিউজ
স্বাগতম করাঙ্গী নিউজ নিউজপোর্টালে। ১৫ বছর ধরে সফলতার সাথে নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে করাঙ্গী নিউজ। দেশ বিদেশের সব খবর পেতে সাথে থাকুন আমাদের। বিজ্ঞাপন দেয়ার জন‌্য যোগাযোগ করুন ০১৮৫৫৫০৭২৩৪ নাম্বারে।

চুনারুঘাটে ব্যারিস্টার সুমনের নির্বাচনী সমাবেশে লাখো মানুষের ঢল

  • সংবাদ প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ৪ জানুয়ারী, ২০২৪
শেখ মোঃ হারুনুর রশিদ: আসন্ন দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চুনারুঘাট-মাধবপুর-৪ আসনের “ঈগল পাখি” মার্কার স্বতন্ত্র প্রার্থী ব্যারিস্টার সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন-এর নির্বাচনী জনসভা জনসমুদ্রে পরিণত হয়েছে।
বুধবার(৩জানুয়ারী) বিকাল ৩টায় চুনারুঘাট মধ্যবাজারে ছিল নির্বাচনী শেষ জনসভা ।এ উপলক্ষে উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের প্রায় লক্ষাধিক মানুষ মিছিলে মিছিলে জনসভায় যোগদান করেন।চুনারুঘাটবাসীর ভাষ্যমতে চুনারুঘাটের ইতিহাসে ওই জনসভা ছিল সর্বকালের সেরা জনসভা।
সমাবেশে ব্যারিস্টার সুমন জনগণকে নিয়ে তাঁর দেখা স্বঁপ্নের মধ্যে কয়েকটি স্বঁপ্নের কথা উল্লেখ করে বলেন,আগামী ৭ জানুয়ারী তাঁর ‘ঈগল পাখি’ মার্কায় ভোট দিয়ে তাকে সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত করলে চুনারুঘাটের পুরাতন মরা খোয়াই নদীকে পুনরুজ্জীবিত করে দুর্গন্ধমুক্ত চুনারুঘাট তৈরি করা,পৌরসভার পাকুড়িয়া অংশের খোয়াই নদীর উপর ব্রীজের সংস্কার,ঢাকা-সিলেট পুরাতন মহাসড়ক প্রসস্থ করা,চুনারুঘাটে একটি আন্তর্জাতিক মানের ফুটবল মাঠ তৈরি করা,চুনারুঘাট ১০০শয্যা হাসপাতালের উন্নতি করা,আগামী প্রজন্মের ছোট ছোট বাচ্চাদেরকে মাদকের ভয়াল থাবা থেকে বাঁচাতে বাচ্চাদের খেলাধূলায় নিয়ে যেতে প্রতি ওয়ার্ডে অন্তত এক কের(৩৬ শতক)জমির পরিমাণের ফুটবল মাঠ করে দেয়া,প্রশাসনকে সাথে নিয়ে চুনারুঘাটকে মাদকমুক্ত করা,টাকা-পয়সার অভাবে যারা লেখাপড়া করতে পারবেনা তাদেরকে প্রয়োজনে নিজ অর্থায়নে হলেও বই,খাতা-কলম কিনে দেয়াসহ সমাজের সকল উন্নয়নমূলক কার্যক্রম করার স্বপ্নের কথা বলেন তিনি।এছাড়াও তিনি বলেন মুসলিম,হিন্দু বৌদ্ধ,খ্রিস্টানসহ যে কোন ধর্মের কোন নারী-শিশুদের উপর নির্যাতন করা হলে অপরাধীদের বিরুদ্ধে আইগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।
এছাড়াও চা-বাগানবাসীদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন,চা-শ্রমিকরা ১৭০ টাকা মজুরী দিয়ে আর কত চলতে পারে?তাদের বেতন বৃদ্ধির ব্যাপারে আশ্বস্ত করে তিনি বলেন,আমি বেঁচে থাকতে দেখে যেতে চাই চা-বাগানের শ্রমিক ভাই-বোনদের মাঝ থেকে অন্তত ৪/৫জন ব্যারিস্টার তৈরি হয়েছে।জন্মের পরে যে চুনারুঘাট-মাধবপুুর তিনি পেয়েছেন,মৃত্যুর আগে এর চেয়ে ভাল চুনারুঘাট-মাধবপুর রেখে যেতে চান তিনি।
জনসভায় বক্তব্য দেন ব্যারিস্টার সুমনের ‘মা’ মোছাঃ আম্বিয়া বেগম চৌধুরী।এসময় জনগণের কাছে “ঈগল পাখি”প্রতীকে ভোট চেয়ে ব্যারিস্টার সুমনকে জনগণের হাওলা করে দেন তাঁর মা।জনগণের কাছে ভোট চেয়ে বক্তব্য রাখেন ব্যারিস্টার সুমনের মেয়ে আমেরিকা প্রবাসী সৈয়দা রামিসা।এসময় উপস্থিত ছিলেন ব্যারিস্টার সুমনের সহধর্মিণী শাম্মী আক্তার,তাদের একমাত্র পুত্র সৈয়দ সায়মান এবং বড় ভাই সৈয়দ সোহাগ হকসহ পরিবারের সকল সদস্যগণ।
এছাড়াও জনসভায় বক্তব্য রাখেন,চুনারুঘাট উপজেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ও ৭নং উবাহাটা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আলহাজ্ব মোঃ রজব আলী,মাধবপুর উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি ও বার বার নির্বাচিত পৌর মেয়র শাহ মোঃ মুসলিম,মাধবপুরের বহরা ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান মোঃ আলাউদ্দিন,চৌমুহনী ইউনিয়ের সাবেক চেয়ারম্যান হাবিবুর রহমান সুচন,শাহজানপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান বাবুল খাঁন,জেলা পরিষদ সদস্য ফাতেমা রিনা প্রমুখ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ