1. nafiz.hridoy285@gmail.com : Hridoy Fx : Hridoy Fx
  2. miahraju135@gmail.com : MD Raju : MD Raju
  3. koranginews24@gmail.com : সম্পাদক : সম্পাদক
চুনারুঘাটে নিরাপত্ত্বাহীনতায় চা শ্রমিকরা - করাঙ্গীনিউজ
করাঙ্গী নিউজ
স্বাগতম করাঙ্গী নিউজ নিউজপোর্টালে। ১৩ বছর ধরে সফলতার সাথে নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে করাঙ্গী নিউজ। দেশ বিদেশের সব খবর পেতে সাথে থাকুন আমাদের। বিজ্ঞাপন দেয়ার জন‌্য যোগাযোগ করুন ০১৮৫৫৫০৭২৩৪ নাম্বারে।

চুনারুঘাটে নিরাপত্ত্বাহীনতায় চা শ্রমিকরা

  • সংবাদ প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ১৫ নভেম্বর, ২০১৮

নিজস্ব প্রতিনিধি, হবিগঞ্জ: হবিগঞ্জের সিনিয়র আইনজীবী বঙ্গবন্ধু পরিষদের সভাপতি এবং ডানকান কোম্পানীর আইন উপদেষ্টা এডভোকেট আবুল খায়ের বলেছেন, চা শ্রমিকরা বংশ পরম্পরায় কাজ করে চায়ের উপর বিশেষজ্ঞ হিসেবে পরিণত হয়েছে। তাদের অক্লান্ত পরিশ্রমে চা উৎপাদন হয়ে বিদেশে রপ্তানী হয় এবং সরকার বৈদেশিক মুর্দা অর্জন করে। দেশের অর্থনীতিতে চা শ্রমিকদের ভূমিকা গুরুত্বপূর্ণ। চা শ্রমিকরা নিজেদেরকে আওয়ামী লীগ পরিবারের সদস্য মনে করেন। কারণ- বঙ্গবন্ধু যখন চা বোর্ডের চেয়ারম্যান ছিলেন; তখন থেকেই তিনি চা শ্রমিকদের অত্যন্ত স্নেহের চোখে দেখতেন। তিনি তাদেরকে ভোটের অধিকার দিয়েছিলেন। তাই সরকার শ্রমিকদের নিরাপত্ত্বা অবশ্যই নিশ্চত করবে। প্রয়োজনে জেলা আওয়ামী লীগ সভাপতি এডভোকেট মোঃ আবু জাহিরকে নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচটি ইমামের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রীর সাথে চা শ্রমিকদের আবারো স্বাক্ষাতের ব্যবস্থা করব।

মঙ্গলবার বিকেলে চানপুর চা বাগান কম্পাউন্ডে ওই বাগানের ৫টি ডিভিশনের শ্রমিকদের নিরাপত্ত্বা বিষয়ে এক আইন শৃঙ্খলা ও মতবিনিময় সভায় তিনি একথাগুলো বলেন।

এডভোকেট আবুল খায়ের আরো বলেন, গত ১০ বছরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা দেশের অনেক উন্নয়ন করেছেন। অসহায় গরীব মানুষের মুখে হাঁসি ফুটিয়েছেন। দর্ভিক্ষ ও দুর্নীতির দেশকে দুর্নীতিমুক্ত ও উন্নয়নশীল দেশের পরিণত করেছেন। তাই চা শ্রমিকদের পূর্বের ন্যায় আগামী নির্বাচনেও নৌকার পক্ষে কাজ করবে এবং বিজয় নিশ্চিত করবে।

চানপুর পঞ্চায়েত সভাপতি সাধণ সাওতালের সভাপতিত্বে বাগানের আইন শৃঙ্খলা নিয়ে এই মতবিনিময় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্য এডভোকেট ইকবাল ভূইয়া।

বক্তৃতা করেন বাংলাদেশ চা শ্রমিক ইউনিয়ন যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নিপেন পাল, ইউপি সদস্য লক্ষ্মী চরণ বাকতি, সাবেক ইউপি সদস্য শ্যামল মুদি, বেগমখান পঞ্চায়েত সভাপতি চন্দ্র কর্মকার, জোয়ালভাঙ্গা বাগান পঞ্চায়েত সভাপতি সম্যর্ত কর্মকার প্রমুখ।

সভায় চা শ্রমিকরা বলেন, বাগানের আইন শৃঙ্খল ভেঙ্গে পড়েছে। গ্রামাঞ্চলের বহিরাগত লোকজনের আনাগোনা ও আক্রমণ বেড়েছে। গাছ চোর এবং অবৈধভাবে বালি উত্তোলনের বিরুদ্ধে বাধা দিলে বাগানে শ্রমিকদেরকে অত্যাচার করা হয় এবং মিথ্যা মামলা দেওয়া হয়। এমনকি চুনারুঘাট বাজারে আসলে তাদেরকে মারধোর এবং জিনিসপত্র ছিনিয়ে নেয় লোকজন। এমনকি বাগানের ইউপি মেম্বারকেও মারধোর করে মিথ্যা মামলার ঘটনা ঘটেছে। গাছ চুরিতে বাধা দেওয়ায় শ্রমিকদের নামে মিথ্যা মামলা দেয়া হচ্ছে। শ্রমিকরা আরো বলেন, স্বাধীনতা যুদ্ধে বঙ্গবন্ধুর ডাকে সাড়া দিয়ে যুদ্ধ করেছি এবং সবসময় নৌকায় ভোট দিয়েছি। সাধারণ লোকজন বিএনপি জামায়াত করলেও আমরা সবসময় নৌকায় ভোট দেই। কিন্তু এই সরকারের সময়ে আমরা নির্যাতিত হচ্ছি। এ ব্যাপারে প্রশাসনের হস্তক্ষেপ কামনা করেন তারা।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
x