Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!
 #  বাহুবলে সংঘর্ষের ঘটনায় ৫শ জনের বিরুদ্ধে মামলা,গ্রেফতার ২৫ #  লিবিয়ায় মানব পাচারকারীদের গুলিতে ২৬ বাংলাদেশিসহ নিহত ৩০ #  লাখাইয়ে ‘বিপর্যয়ে সৈনিকরা’ কাজ করেছে দিন রাত #  করোনা ও কৃষি #  হবিগঞ্জে আরো ৭ জন শনাক্ত, মোট ১৭১ #  বাহুবলে অবৈধ বালু উত্তোলন, লক্ষ টাকা জরিমানা #  বাহুবলে সরকারি চালের বস্তা জব্দ: দোকান কর্মচারীর জেল #  ১৫ জুন পর্যন্ত মানতে হবে ১৫ শর্ত #  খোয়াই পত্রিকার সার্কুলেশন ম্যানেজারের পিতা আর নেই #  নবীগঞ্জে সরকারি ২৫০০ টাকার তালিকায় অনিয়ম! #  দেশে করোনায় নতুন শনাক্ত ২০২৯ #  শ্রীমঙ্গলে মুক্তিযোদ্ধা বিকাশ দত্ত’র সৎকার করল এক মুসলিম সংগঠন #  বাহুবলে মিষ্টির দোকান থেকে সরকারী চাল জব্দ: আটক ১ #  ইউনাইটেড হাসপাতালে আগুন, ৫ করোনা রোগীর লাশ উদ্ধার #  ভারতীয়দের গণপিটুনিতে মাধবপুরের যুবক নিহত

সিলেট চেম্বার নির্বাচন কাল

নিজস্ব প্রতিনিধি, সিলেট: রাত পোহালেই সিলেটের ব্যবসায়ী সমাজের ঐতিহ্যবাহী সংগঠন সিলেট চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির নির্বাচন। এবার জমে উঠেছে ব্যবসায়ীদের শীর্ষ এ সংগঠনটির নির্বাচন। শেষ সময়ে জমজমাট হয়ে উঠছে নগরীর বাণিজ্যিক এলাকাগুলো।

বিপনী বিতানসহ বিভিন্ন মার্কেটে ভোটারদের দ্বারে দ্বারে যাচ্ছেন প্রার্থীরা। প্রচারনা চলছে সকাল থেকে গভীর রাত পর্যন্ত। প্রার্থীদের ছোটাছুটিতে ভোটারদের মাঝেও বেশ উৎসাহ উদ্দীপনা বিরাজ করছে। তবে এবার ব্যবসায়ীরা দুটি বড় বলয়ে বিভক্ত হয়ে নির্বাচনে অংশ নিচ্ছেন। ভোটাররাও বিভক্ত হয়ে পড়েছেন দু’ভাগে। প্রার্থীরা ভোটারদের নিজ বলয়ে আনতে নানা ফন্দিফিকিরের আশ্রয় নিচ্ছেন। কেউ কেউ রাজনৈতিক পরিচয়ে আবার অনেকে আত্মীয়তা ও বন্ধুত্বের আশ্রয় নিয়ে ভোটারদের কাছে টানার চেষ্টা করছেন।

তবে সাধারণ ভোটাররা জানিয়েছেন, বাণিজ্য সংগঠনগুলো নামে ব্যবসায়ীদের সংগঠন হলেও তারা রাজনৈতিক অঙ্গনের ছায়া হিসেবে কাজ করছে। দলীয়ভাবে চেম্বার দখলের মানসিকতা তৈরি হওয়ায় নির্বাচনে অনেক প্রবীণ ও তরুণ ব্যবসায়ী উৎসাহ হারিয়েছেন। এভাবে চলতে থাকলে নেতৃত্বের বিকাশ হবে না। ব্যবসায়ীদের এ সংগঠনের ঐহিত্য রক্ষায় বিশেষ করে নির্বাচনে গণতন্ত্রের শতভাগ চর্চা আশা করেন তারা।

ইতোমধ্যে নির্বাচনের সব প্রস্তুুুতি চূড়ান্ত করেছে নির্বাচনী পরিচালনা বোর্ড। আগামীকাল শনিবার (২১ সেপ্টেম্বর) ২ হাজার ৪৬৫ জন ভোটার ভোট প্রয়োগের মধ্যদিয়ে তাদের ব্যবসায়ী প্রতিনিধি নির্বাচিত করবেন।

ব্যবসায়ী মহলের শীর্ষ সংগঠন সিলেট চেম্বার অব কমার্স এ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির এ নির্বাচনে ‘সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদ’ ও ‘সিলেট ব্যবসায়ী পরিষদ’ নামে দুই বলয়ে ৪১ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। দুই বলয়ের প্রার্থীদের উদ্যোগে গত বুধবার নৈশভোজের মাধ্যমের তাদের নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেন।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানিয়েছে, এবারের নির্বাচনে ভোটার সংখ্যা সর্বমোট ২,৪৬৫ জন। যার মধ্যে অর্ডিনারী ১৪১৩ জন, এসোসিয়েট ১০৪০ জন, ট্রেড গ্রুপ ১১ জন ও টাউন এসোসিয়েশন ১ জন। এ বছর পরিচালনা পরিষদের ২২টি পদে সর্বমোট ৪১ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন, যার মধ্যে অর্ডিনারী শ্রেণী থেকে ২৪ জন, এসোসিয়েট শ্রেণী থেকে ১০ জন এবং ট্রেড গ্রুপ শ্রেণী থেকে ৬ জন প্রার্থী রয়েছেন।

সিলেট চেম্বারের পরিচালক পদে অর্ডিনারি ক্যাটাগরিতে সিলেট ব্যবসায়ী পরিষদে প্রার্থী হয়েছেন এহতেশামুল হক চৌধুরী, সাহিদুর রহমান, ফালাহ উদ্দিন আলী আহমদ, মুশফিক জায়গীরদার, আব্দুর রহমান জামিল, খন্দকার ইসরার আহমদ রকী, শফিকুল ইসলাম, শান্ত দেব, আব্দুস সামাদ, খলিলুর রহমান চৌধুরী, ফখর উছ সালেহীন নাহিয়ান এবং আলীমুল এহছান চৌধুরী।

আর সম্মিলিত ব্যবসায়ী পরিষদে প্রার্থীদের মধ্যে রয়েছেন আবু তাহের মো. শোয়েব, মো. মামুন কিবরিয়া সুমন, এনামুল কুদ্দুস চৌধুরী, মুকির হোসেন চৌধুরী, হুমায়ুন আহমদ, মো. ফারুক আহমদ, মো. নজরুল ইসলাম, জুবায়ের রকিব চৌধুরী, আক্তার হোসেন খান, আব্দুল হাদি পাবেল, শহীদ আহমদ চৌধুরী ও মোহাম্মদ আব্দুস সালাম। অ্যাসোসিয়েট ক্যাটাগরিতে প্রার্থী হয়েছেন মাসুদ আহমদ চৌধুরী, মো. এমদাদ হোসেন, পিন্টু চক্রবর্তী, আব্দুর রহমান, চন্দন সাহা, মো. আতিক হোসেন।

সিলেট চেম্বারের প্রশাসক ও মহানগর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক আসাদ উদ্দিন আহমদ দৈনিক জালালাবাদকে বলেন, ভোট গ্রহনের স্থান নির্ধারণসহ সব প্রস্তুুতি সম্পন্ন করা হয়েছে।

শনিবার সকাল ৮ থেকে টানা ৪টা পর্যন্ত ভোট গ্রহন চলবে। নির্বাচন সুষ্ঠু ও সুন্দরভাবে আয়োজনে নির্বাচন বোর্ড ও আপীল বোর্ডের চেয়ারম্যান ও সদস্যগণ সকলে কঠোর পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। আমরা সিলেটের ব্যবসায়ীদের একটি সুন্দর ও গ্রহণযোগ্য নির্বাচন উপহার দিতে চাই।