1. nafiz.hridoy285@gmail.com : Hridoy Fx : Hridoy Fx
  2. miahraju135@gmail.com : MD Raju : MD Raju
  3. koranginews24@gmail.com : সম্পাদক : সম্পাদক
ছয় মাসের বেশি ‘ভারপ্রাপ্ত’ অধ্যক্ষ থাকা যাবে না - করাঙ্গীনিউজ
  • Youtube
  • English Version
  • বুধবার, ১০ অগাস্ট ২০২২, ০৫:০২ অপরাহ্ন

করাঙ্গী নিউজ
স্বাগতম করাঙ্গী নিউজ নিউজপোর্টালে। ১৩ বছর ধরে সফলতার সাথে নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে করাঙ্গী নিউজ। দেশ বিদেশের সব খবর পেতে সাথে থাকুন আমাদের। বিজ্ঞাপন দেয়ার জন‌্য যোগাযোগ করুন ০১৮৫৫৫০৭২৩৪ নাম্বারে।

ছয় মাসের বেশি ‘ভারপ্রাপ্ত’ অধ্যক্ষ থাকা যাবে না

  • সংবাদ প্রকাশের সময়: বুধবার, ১৩ জুলাই, ২০২২

করাঙ্গীনিউজ:
‘ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ’ পদে দায়িত্ব পালনে নতুন নিয়ম জারি করেছে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়। এখন থেকে এক বছর বা তার বেশি সময় পর্যন্ত যারা ‘ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ’ হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন, তারা আর ওই পদে থাকতে পারবেন না। আগামী ছয় মাসের মধ্যে ওই পদে নিয়মিত অধ্যক্ষ নিয়োগ দিতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

বুধবার (১৩ জুলাই) জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে। নড়াইলে শিক্ষকের গলায় জুতার মালা পরানো ও সহিংসতার ঘটনার পর নতুন এই নিয়ম জারি করা হলো।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক মশিউর রহমান বলেন, ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ নিয়োগের ক্ষেত্রে আমাদের আগে থেকেই নির্দেশনা ছিল যে, দায়িত্বপ্রাপ্ত ব্যক্তি ছয় মাসের বেশি সময় থাকতে পারবেন না।

‘করোনা ও অন্যান্য পরিস্থিতির কারণে কমিটি গঠন না হওয়ায় সেটি মানা হচ্ছিলো না। এখন থেকে সেটি যাতে নিয়মিত মানা হয়, সেজন্য আমরা দেশের সব সরকারি-বেসরকারি কলেজে চিঠি দিয়েছি।’

তিনি আরও বলেন, যেসব কলেজে নিয়মিত অধ্যক্ষ নেই, সেখানে ছয় মাসের বেশি কেউ ভারপ্রাপ্ত হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে পারবেন না। এ সময়ের মধ্যে নতুন অধ্যক্ষ নিয়োগ দিতে হবে। যদি কোথাও এ নির্দেশনা অমান্য করার অভিযোগ প্রমাণিত হয়, তবে সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ নিয়োগ সংক্রান্ত জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের কলেজ পরিদর্শক (ভারপ্রাপ্ত) ফাহিমা সুলতানার সই করা এক অফিস আদেশে বলা হয়, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বেসরকারি কলেজ বা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও ইনস্টিটিউটসমূহে এক বছর বা তার অধিক সময় থেকে যারা ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের দায়িত্ব পালন করছেন (ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ কর্তৃক প্রেরিত তথ্যের ভিত্তিতে) তাদের এ দায়িত্ব পালন ‘জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বেসরকারি কলেজ শিক্ষকদের চাকুরীর শর্তাবলি রেগুলেশন (সংশোধিত) ২০১৯’ এর পরিপন্থি হওয়ায় ওই দায়িত্ব পালনে আর কোনো সুযোগ থাকছে না।

এতে আরও বলা হয়, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বেসরকারি কলেজ শিক্ষকদের চাকুরীর শর্তাবলি রেজুলেশন (সংশোধিত) ২০১৯ ধারা-৪ এর ২(র) অনুযায়ী ‘কলেজে অধ্যক্ষ পদ শূন্য হলে বা অধ্যক্ষের অবর্তমানে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ হিসেবে উপাধ্যক্ষ বা জ্যেষ্ঠতম পাঁচজন শিক্ষকের মধ্য থেকে যেকোনো একজনকে দায়িত্ব দিতে হবে এবং পরবর্তী ছয় মাসের মধ্যে বিধি মোতাবেক অধ্যক্ষ নিয়োগ কার্যক্রম সম্পন্ন করতে হবে।

‘যুক্তিসঙ্গত কারণ ছাড়া ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের দায়িত্ব দেওয়ার এক বছরের মধ্যে নিয়মিত অধ্যক্ষ নিয়োগ দিতে ব্যর্থ হলে, ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের সই করা কাগজপত্র ও কার্যবিবরণী জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃক স্বীকৃত অথবা গৃহীত হবে না।’

এদিকে জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয় এবং মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরের তদন্ত প্রতিবেদনে নড়াইলে পুলিশের সামনে মির্জাপুর ইউনাইটেড ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ স্বপন কুমার বিশ্বাসের গলায় জুতার মালা পরানো ও সহিংসতার ঘটনায় ওই কলেজের অধ্যক্ষ পদ দখলে নিতে কয়েকজন শিক্ষকের প্রতিযোগিতায় নামার বিষয়টি উঠে এসেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ
x