1. nafiz.hridoy285@gmail.com : Hridoy Fx : Hridoy Fx
  2. miahraju135@gmail.com : MD Raju : MD Raju
  3. koranginews24@gmail.com : সম্পাদক : সম্পাদক
শায়েস্তাগঞ্জে পেশাগত দায়িত্ব পালনে গিয়ে হামলার শিকার দুই সাংবাদিক - করাঙ্গীনিউজ
  • Youtube
  • English Version
  • রবিবার, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ০৩:৫৫ পূর্বাহ্ন

করাঙ্গী নিউজ
স্বাগতম করাঙ্গী নিউজ নিউজপোর্টালে। ১২ বছর ধরে সফলতার সাথে নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে করাঙ্গী নিউজ। দেশ বিদেশের সব খবর পেতে সাথে থাকুন আমাদের। বিজ্ঞাপন দেয়ার জন‌্য যোগাযোগ করুন ০১৮৫৫৫০৭২৩৪ নাম্বারে।

শায়েস্তাগঞ্জে পেশাগত দায়িত্ব পালনে গিয়ে হামলার শিকার দুই সাংবাদিক

  • সংবাদ প্রকাশের সময়: সোমবার, ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২১

করাঙ্গীনিউজ: হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জে সংবাদ সংগ্রহে গিয়ে দূর্বৃত্বদের হামলার শিকার হয়েছেন দৈনিক হবিগঞ্জ সমাচার পত্রিকার যুগ্ম সম্পাদক ও আজকের পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি কাজল সরকার এবং ডেইলি অবজারভার-এর প্রতিনিধি আমির হামজা। গতকাল রবিবার দুপুরে শায়েস্তাগঞ্জ হাইওয়ে থানার গ্যারেজের ছবি তোলার সময় তাদের উপর হামলা চালানো হয়।

আহত সাংবাদিকরা জানান, একটি সংবাদ সংগ্রহের জন্য শায়েস্তাগঞ্জ হাইওয়ে থানায় যান সাংবাদিক কাজল সরকার ও আমির হামজা। সেখানে তারা হাইওয়ে থানার সামনের একটি গ্যারেজের ছবি তুলতে গেলে এক যুবক মোবাইল ছিনিয়ে নেয়ার চেষ্টা করেন। এক পর্যায়ে আরও তিনজন এগিয়ে এসে নিজেদেরকে হাইওয়ে থানার লোক পরিচয় দিয়ে দুই সাংবাদিককে মারপিট শুরু করেন।

হামলার নেতৃত্ব দেন, উলুকান্দি গ্রামের আব্দুল ওয়াহিদ ও তার ছেলে সাগর মিয়া।

মারপিটের এক পর্যায়ে স্থানীয় কয়েকজন এগিয়ে এসে দুই সাংবাদিককে উদ্ধার করলেও দূর্বৃত্ত¡রা তাদেরকে টেনে-হিচঁড়ে থানায় নিয়ে যান। সেখানে নিয়েও দূর্বৃত্ত¡রা দুই সাংবাদিককে গালাগাল করেন এবং মারতে এগিয়ে আসেন।

এ সময় হাইওয়ে থানার গাড়ি চালক শামীম নিজেকে এসআই পরিচয় দিয়ে দুই সাংবাদিকের আইডি কার্ড নিয়ে নেন। ফেরত চাইলে এখন দেয়া যাবে না বলে জানান।

এ ব্যাপারে সাংবাদিক কাজল সরকার বলেন, ‘শায়েস্তাগঞ্জ হাইওয়ে থানা যে গ্যারেজে গাড়ি রাখেন আমরা সেই গ্যারেজের একটি ছবি তোলছিলাম। এ সময় হঠাৎ কয়েকজন লোক এসে নিজেদের থানার লোক পরিচয় দিয়ে আমাদের মারতে শুরু করে। পরে শার্টের কলারে ধরে থানার ভিতরে নিয়ে যায়। হাইওয়ে থানার দ্বিতীয় তলায় নিয়ে তারা আমাদের গালাগাল করে এবং মারতে এগিয়ে আসে। অথচ উপস্থিত পুলিশ সদস্যরা একেবারেই নিরব ভুমিকা পালন করেন।’

শায়েস্তাগঞ্জ হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাইনুল ইসলাম বলেন, ‘বিষয়টি একেবারেই অনাকাঙ্খিত। ঘটনার পর আমি স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান রজব আলী সাহেবকে নিয়ে হবিগঞ্জের সিনিয়র সাংবাদিকদের মধ্যস্ততায় প্রাথমিকভাবে বিষয়টি সমাধান করে দিয়েছি।’

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ