1. nafiz.hridoy285@gmail.com : Hridoy Fx : Hridoy Fx
  2. miahraju135@gmail.com : MD Raju : MD Raju
  3. koranginews24@gmail.com : সম্পাদক : সম্পাদক
হবিগঞ্জে টমটম শ্রমিকদের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ৩০, আটক ১০ - করাঙ্গীনিউজ
  • Youtube
  • English Version
  • রবিবার, ২৯ নভেম্বর ২০২০, ০১:১২ অপরাহ্ন

করাঙ্গী নিউজ
স্বাগতম করাঙ্গী নিউজ নিউজপোর্টালে। ১২ বছর ধরে সফলতার সাথে নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে করাঙ্গী নিউজ। দেশ বিদেশের সব খবর পেতে সাথে থাকুন আমাদের। বিজ্ঞাপন দেয়ার জন‌্য যোগাযোগ করুন ০১৮৫৫৫০৭২৩৪ নাম্বারে।

হবিগঞ্জে টমটম শ্রমিকদের দুই গ্রুপের সংঘর্ষে আহত ৩০, আটক ১০

  • সংবাদ প্রকাশের সময়: বৃহস্পতিবার, ১৯ নভেম্বর, ২০২০

করাঙ্গীনিউজ: হবিগঞ্জ শহরের উমেদনগর খোয়াই পাড় কিবরীয়া ব্রীজ এলাকায় টমটম (ইজিবাইক) স্ট্যান্ড দখল নিয়ে দু’দল শ্রমিকদের মধ্যে সংঘর্ষ ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও ইটপাটকেল বিনিময়ের ঘটনা ঘটেছে। আর এতে করে ওই এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। সংঘর্ষে উভয় পক্ষের অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছে।

গুরুতর আহত অবস্থায় ৮জন কে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে। অন্যান্যদের হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৯ নভেমম্বর)  দুপুরে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

জানা যায়, ওই এলাকায় রামপুর থেকে সাতগ্রাম সড়কের মধ্যে চলাচলরত টমটম (ইজিবাইক) শ্রমিকদের দুটি গ্রুপ রয়েছে। উভয় পক্ষই দীর্ঘদিন যাবত খোয়াই নদীর পাড়ে অবস্থিত ওই স্ট্যান্ডটি নিজেদের দখলে রাখতে চেয়েছিল। এর একটি গ্রুপের নেতৃত্ব দেন উমেদনগর গ্রামের শেখ হান্নান ও অপর গ্রুপের মুক্তার হোসেন। দীর্ঘদিন ধরে স্ট্যান্ডটি দখল নিয়ে দুটি গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল।

এ বিরোধের জেরে দুপুরে উভয় পক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। এক পর্যায়ে তারা দেশিয় অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে উভয় পক্ষের অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছে। খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রবিউল ইসলাম, সদর থানা পুলিশ ও হবিগঞ্জ ব্যক্সের সভাপতি শামছুল হুদাসহ ঘটনাস্থলে যান। এসময় পুলিশ ১০ রাউন্ড টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে।

সংঘর্ষে আহতরা হল, রশিদ মিয়া, ফরিদ খান, সেকুল মিয়া, তুষার খান, ফরহাদ হোসেন, আব্দুস সমেদ, মধু মিয়া, ফয়সল মিয়া, তুরাব আলী, মুশাহিদ, শান্ত মিয়া, আব্দুল মোছাব্বির, আরিফ, তানভীর হোসেন, মাছুম মিয়া, কাওসার আহমেদ, সুমন আহমেদ, কালা মিয়া, ইমন মিয়া, সাব্বির, জুলহাস মিয়া, সাইদুর মিয়া, তাজুল ইসলাম ও খোকন মিয়া।

পুলিশের মধ্যে আহতরা হলেন, সদর থানার এসআই হারুন আল রশিদ, খুর্শেদ আলম, অভিজিৎ ভৌমিক, নাজমুল হাসান, সাইদুর রহমান, এসএআই সুমন চন্দ্র রায়, হাবিবুর রহমান, তোরাব হোসেন, নিজ সিংহকে হবিগঞ্জ সদর হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়।

এ ব্যাপারে হবিগঞ্জ সদর থানার (ওসি) মোঃ মাসুক আলী জানান, খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে ১০ রাউন্ড টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রনে আনে। ফের অপ্রীতিকর ঘটনা এড়াতে এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। টমটম স্ট্যান্ডটি নিয়ে তাদের মধ্যে দীর্ঘদিনের বিরোধ ছিল। এছাড়াও এ ঘটনায় ১০ জনকে আটক করা হয়েছে এবং উদ্ধার করা হয়েছে বিপুল পরিমান দেশীয় অস্ত্র।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ