Oops! It appears that you have disabled your Javascript. In order for you to see this page as it is meant to appear, we ask that you please re-enable your Javascript!
 #  বিশ্বনাথের তরুণীকে গণধর্ষণ: দুলাভাই গ্রেফতার #  চুনারুঘাটে ৪ ড্রেজার মেশিন আগুনে পুড়িয়ে ধ্বংস #  বাহুবলের মিরপুরে কলেজের ছাত্রীকে উত্যক্ত: সহপাঠীর কারাদন্ড #  বিশ্বকাপ বাছাইপর্ব: ভারতের সঙ্গে বাংলাদেশের ড্র #  বাবার কোলেই তুহিনকে ছুরি দিয়ে গলাকেটে খুন করেন চাচা #  জকিগঞ্জে স্কুলছাত্রী ধর্ষণ, আটক ১ #  দিরাইয়ে শিশু তুহিন হত্যা : বাবাসহ ৩ জন রিমান্ডে #  সুনামগঞ্জে শিশু তুহিন হত্যায় মামলা করলেন মা #  মাধবপুরে জাতীয় হাত ধোয়া দিবস পালিত #  হবিগঞ্জে ইয়াবাসহ স্বামী-স্ত্রী আটক #  আজমিরীগঞ্জে কলেজ ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার #  শায়েস্তাগঞ্জে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ ডাকাত নিহত #  দিরাইয়ে স্বজনদের হাতেই নিহত হয় শিশু তুহিন, আটক ৭ #  মাধবপুরে দুই মোটরসাইকেলের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ১ #  ওসমানীনগরে আইনশৃঙ্খলা কমিটির সভা

মাধবপুরে মাদক বিরোধী সভা: চা শ্রমিকদের চিকিৎসাসেবা

মাধবপুর (হবিগঞ্জ)প্রতিনিধি:
বিজিবি’ শ্রীমঙ্গল সেক্টর কমান্ডার কর্ণেল মোঃ জোবায়ের হাসনাৎ বলেছেন  মাদক,সমাজ ও দেশের জন্য ক্ষতিকর। দেশকে মাদক মুক্ত করতে বিজিবি সরকারি দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি সচেতন মূলক কাজ করে যাচ্ছে। মাদকের বিস্তার রোধে সকল কে কাজ করতে হবে। তেলিয়াপাড়া মুক্তিযুদ্ধের একটি স্মৃতিবিজড়িত ঐতিহাসিক স্থান। মাদকের কারনে ঐতিহাসিক স্থানটির সুনাম নষ্ট হচ্ছে। আইন শৃঙ্গলা বাহিনী সতর্ক অবস্তান ও বাগানবাসি সচেতন হওয়ায় ঐতিহাসিক এ স্থানটিতে মাদক সেবনকারীদের আনাগোনা নেই।

তিনি শনিবার সকালে বিজিবি’ ৫৫ ব্যাটালিয়ান হবিগঞ্জের উদ্যাগে তেলিয়াপাড়া চা বাগান নাচঘর প্রাঙ্গনে মাদক বিরোধী মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথি’র বক্তব্যে তিনি এ কথা গুলো বলেন।

৫৫ বিজিবি’র অধিনায়ক লে.কর্ণেল এম জাহিদুর রশীদের সভাপতিত্বে মাদক বিরোধী সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন সহকারী কমিশনার (ভুমি) মতিউর রহমান খান, বাগান ব্যবস্থাপক কাজী এমদাদুর রহমান মিঠু, ইউপি চেয়ারম্যান তৌফিকুল আলম চৌধুরী,হবিগঞ্জ জেলা মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রনের ইন্সপেক্টর মিজানুর রহমান , তেলিয়াপাড়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ রাকিবুল হাসান , শিক্ষক মিজানুর রহমান, সাংবাদিক রোকন উদ্দিন লষ্কর, চা শ্রমিক নেতা খোকন তাঁতি , শিক্ষার্থী আয়ুব হোসেন ইমন, আইরিন ইকবাল। পরে বিজিবি’র পক্ষ থেকে ৭ শ জন চা শ্রমিক নারী পুরুষদের মধ্যে ফ্রি চিকিৎসা সেবা ও ঔষধ বিতরন করা হয়।