ব্রিটেনের রানির বিইম খেতাব পেলেন হবিগঞ্জের নীলিমা রহমান

করাঙ্গীনিউজ: ব্রিটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের সম্মাননা ব্রিটিশ এম্পেয়ার ম্যাডেল (বিইম) খেতাবে ভূষিত হলেন হবিগঞ্জের মেয়ে নীলিমা রহমান। করোনাকালীন সময় ব্যাংকিং ও অর্থনৈতিক সেক্টরে বিশেষ অবদান রাখায় তাঁকে এ খেতাব দেওয়া হয়।

বৃটেনের রানি দ্বিতীয় এলিজাবেথের জন্মদিনে প্রতিবছর বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদান রাখায় সমাজের বিভিন্নস্তরে প্রতিনিধিদের বিইম, এমবিই ও বেইম উপাধিতে দেওয়া হয় রানির পক্ষ থেকে।

গত শুক্রবার রানির কার্যালয়ের ওয়েবসাইডে প্রকাশ করা এবারের সম্মাননাপ্রপ্তদের তালিকা। এবারে বিইম খেতাব পেয়েছেন নীলিমা রহমান। তিনি ব্যাংকিং সেক্টরে করোনাকালীন সময় ঝুঁকি নিজে কাজ করা এবং অর্থনীতিকে বিশেষ অবদান রাখায় তাকে এ সম্মাননা প্রদান করা হয়। বৃটেনের বাংলাদেশি কমিউনিটিতে এই প্রথম কোন নারী এ সম্মাননাটি পেলেন। নীলিমা রহমান মাত্র ২৭ বছর বয়সে এ সম্মান অর্জন করেন।

নীলিমা রহমান যুক্তরাজ্যের সাউথ শীল্ড এলাকায় পরিবারের সঙ্গে বসবাস করেন। তাঁরা তিন বোন এক ভাই। তাদের মাঝে সে তৃতীয়।

নীলিমা যুক্তরাজ্যের স্যান্ডারল্যান্ড ইউনিভার্সসিটি থেকে স্নাতকোত্তর পাস করে। পরে তিনি মানি ব্যাংকিং এসোসিয়েটের সাউথশীল্ট কার্যালয়ের সহকারী ব্যবস্থাপক হিসেবে চাকুরিতে যোগদান করেন। নীলিমা রহমানের বাবা হাবিবুর রহমান রানা যুক্তরাজ্যের সাউথশীল্ডের বাংলাদেশি কমিউনিটির একজন সুপরিচিত নেতা ও একজন সফল ব্যবসায়ী। তাঁদের দেশের বাড়ি হবিগঞ্জ শহরের বাণিজ্যিক এলাকায়।নীলিমা দৈনিক প্রথম আলো হবিগঞ্জ প্রতিনিধি হাফিজুর রহমান নিয়নের ভাতিজি।

নীলিমা রহমান তাঁর প্রতিক্রিয়ায় বলেন, এ অর্জন সমস্ত বাংলাদেশি কমিউনিটির। আমরা সুযোগ পেলে ভাল কাজ করতে পারি তা প্রকাশ পেয়েছে এ সম্মাননার মধ্য দিয়ে। তিনি মনে করেন আগামীতে বাংলাদেশি কমিউনিটির নতুন প্রজন্ম আরো ভাল কিছু করবে।

 

 

Social Share

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

5 × 3 =