• Youtube
  • English Version
  • শনিবার, ২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ০৯:০৪ অপরাহ্ন

করাঙ্গী নিউজ
স্বাগতম করাঙ্গী নিউজ নিউজপোর্টালে। ১৫ বছর ধরে সফলতার সাথে নিরপেক্ষ সংবাদ পরিবেশন করে আসছে করাঙ্গী নিউজ। দেশ বিদেশের সব খবর পেতে সাথে থাকুন আমাদের। বিজ্ঞাপন দেয়ার জন‌্য যোগাযোগ করুন ০১৮৫৫৫০৭২৩৪ নাম্বারে।

দালাল শাহীনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ সৌদি আরব ফেরত হুসনার

  • সংবাদ প্রকাশের সময়: শনিবার, ৭ ডিসেম্বর, ২০১৯

নিজস্ব প্রতিনিধি, হবিগঞ্জ: সৌদি আরব থেকে নির্মম ভাবে নির্যাতনে শিকার হয়ে দেশে আসার পর এবার দালাল শাহীনের বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ দায়ের করলেন হুসনার পরিবার।

শুক্রবার (০৬ ডিসেম্বর) রাতে হবিগঞ্জ সদর মডেল থানায় দালাল শাহীনকে একমাত্র অভিযুক্ত করে অভিযোগটি দায়ের করা হয়। শাহীন শহরতলীর উমেদনগর গ্রামের বাসিন্দা বলে জানা গেছে।

এর পুর্বে সৌদি আরবে গৃহকর্তার নির্যাতন থেকে বাচতে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভিডিও বার্তা পাঠায় হুসনা। তিনি আজমিরীগঞ্জ উপজেলার কাকাইলছেও ইউনিয়নের আনন্দপুর গ্রামের শফিউল্লার স্ত্রী। বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হওয়ার পর পররাষ্ট্র মন্ত্রনালয় ও ব্র্যাকের সহযোগীতায় তাকে দেশে ফিরিয়ে আনা হয়।

জানা যায়, দালাল শাহীন মিয়া ও প্রস্তাবিত রিক্রুটিং এজেন্সি আরব ওয়ার্ল্ড ডিস্ট্রিবিউশনের প্রলোভনে পড়ে এজেন্সি আল-সারা ওভারসিস (আরএল-৭৫২) এর মাধ্যমে সৌদি আরব যায় হুসনা আক্তার। তবে সৌদি যাওয়ার পর থেকে তিনি সেখানে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতনের শিকার হন। পরে এক ভিডিও বার্তায় তার ওপর চালানো নির্যাতনের বর্ণনা দিয়ে স্বামী শফিউল্লাহর কাছে বাঁচার আকুতি জানান হুসনা। কোনো উপায় না পেয়ে শফিউল্লা ছুটে যান দালাল ও আরব ওয়ার্ল্ড ডিস্ট্রিবিউশন অফিসে। কিন্তু তারা হুসনাকে দেশে আনতে দুই লাখ টাকা দাবি করেন। উপায় না দেখে গত ২৪ নভেম্বর গণমাধ্যম ও ব্র্যাকের সহায়তা চেয়ে আবেদন করেন শফিউল্লাহ। এরপর নিরাপদে হুসনাকে দেশে ফেরত আনতে পরিবারটিকে সার্বিক সহায়তার সিদ্ধান্ত নেয় ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রাম।

সংবাদটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো সংবাদ